জৈব চাষের জন্য কৃষককে হেক্টর প্রতি ৫০ হাজার টাকা দেবে মোদী সরকার

Saturday, 14 March 2020 12:11 PM

বিষাক্ত কীটনাশক ও সারের পরিবর্তে কৃষক জৈব পদ্ধতিতে চাষ করলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রকল্প অনুযায়ী এবার কৃষক পাবেন হেক্টর প্রতি ৫০ হাজার টাকা । কৃষি ও কৃষক কল্যাণ মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর-এর মতে, এখনও পর্যন্ত ১৯,০০,৭২০ জন কৃষক দেশে জৈব চাষের সাথে যুক্ত হয়েছেন। যার মধ্যে মধ্যপ্রদেশের  স্থান সর্বাগ্রে। জৈব কৃষিকাজ বৃদ্ধিতে সরকার জোর দিচ্ছে। এর জন্য পিকেভিওয়াই (পরমপরাগত কৃষি বিকাশ যোজনা) চালু করা হয়েছে। যার সাহায্যে কৃষক জৈব চাষের জন্য হেক্টর প্রতি ৫০ হাজার টাকা পাবেন। কেন্দ্রীয় সরকার এর জন্য ১৬৩২ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে।

জৈব চাষের জন্য ৫০ হাজার টাকার সহায়তা –

ঐতিহ্যবাহী কৃষি উন্নয়ন প্রকল্পের (পরমপরাগত কৃষি বিকাশ যোজনা) আওতায় কেন্দ্রীয় সরকার ৩ বছরের জন্য জৈব চাষের জন্য হেক্টর প্রতি ৫০ হাজার টাকা সহায়তা করছে। এর মধ্যে জৈব সার, জৈব কীটনাশক এবং ভার্মিকম্পোস্ট ইত্যাদি কেনার জন্য ৩১,০০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। আরও তথ্যের জন্য, কৃষকরা এই ওয়েবসাইটটি https://pgsindia-ncof.gov.in/pkvy/index.aspx  দেখতে পারেন।

জৈব চাষের জন্য শংসাপত্র প্রয়োজনীয় -

উত্পাদিত ফসল তখনই ভালো দামে বিক্রি হবে, যখন আপনার শস্য যে সম্পূর্ণ জৈবিক পদ্ধতিতে উত্পাদিত এমন শংসাপত্র আপনার কাছে থাকবে। এই শংসাপত্রের জন্য একটি প্রক্রিয়া রয়েছে। এই জন্য একটি আবেদন করতে হবে এবং ফি দিতে হবে। শংসাপত্র নেওয়ার আগে মাটি, সার, বীজ, বপন, সেচ, কীটনাশক, ফসল সংগ্রহ, প্যাকিং এবং স্টোরেজ করা সহ প্রতিটি ক্ষেত্রে জৈব পদার্থের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে। আপনি যে ফসল উত্পাদনের জন্য কেবল জৈব জিনিস ব্যবহার করেছেন, এজন্য ব্যবহৃত উপকরণগুলির রেকর্ড রাখতে হবে। এই রেকর্ডের সত্যতা পরীক্ষা করা হয়। তবেই খামার ও সেই খামারে উত্পাদিত ফসল জৈব হওয়ার শংসাপত্র পান। এটি অর্জনের পরে কোনও পণ্য 'জৈব পণ্য' এর আনুষ্ঠানিক ঘোষণার সাথে বিক্রি করা যায়। অ্যাপিডা (কৃষি ও প্রক্রিয়াজাত খাদ্য পণ্য রফতানি উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ) জৈব খাদ্যের নমুনা ও বিশ্লেষণের জন্য ১৯ টি সংস্থাকে স্বীকৃতি দিয়েছে।

স্বপ্নম সেন (swapnam@krishijagran.com)

English Summary: Modi government will give 5০,000 per hectare for organic farming

আপনার সমর্থন প্রদর্শন করুন

প্রিয় অনুগ্রাহক, আমাদের পাঠক হওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আপনার মতো পাঠকরা আমাদের কৃষি সাংবাদিকতা অগ্রগমনের অনুপ্রেরণা। গ্রামীণ ভারতের প্রতিটি কোণে কৃষক এবং অন্যান্য সকলের কাছে মানসম্পন্ন কৃষি সংবাদ বিতরণের জন্যে আমাদের আপনার সমর্থন দরকার। আপনার প্রতিটি অবদান আমাদের ভবিষ্যতের জন্য মূল্যবান।

এখনই অবদান রাখুন (Contribute Now)

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.