মৃত্তিকা সৌরিকরণের উপকারীতা

KJ Staff
KJ Staff
মৃত্তিকা সৌরিকরণ
মৃত্তিকা সৌরিকরণ

 সূর্য রশ্মি, যার দ্বারা আমরা মৃত্তিকার সোলেনাইজেশন অর্থাৎ সৌরিকরণ করে বিভিন্ন আগাছা, রোগ সৃষ্টিকারী জীবানু, ছত্রাক, মাটিরকৃমি ইত্যাদি নষ্ট করতে পারবো। মৃত্তিকা সৌরিকরণ হল, মৃত্তিকা জনিত রোগ পোকা দমন করার জন্য গ্রীষ্মের সময় স্বচ্ছ প্লাস্টিক দ্বারা জমি ঢেকে মাটি গরম করার প্রাকৃতিক বিধি রোগগ্রস্থ মাটিতে অধিক মূল্যবান ফসল উৎপাদন করার জন্য এই পদ্ধতির ব্যবসায়িক ভাবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে মাটির সৌরিকরণে না কেবল রোগ, পোকা আগাছা দমন করা যায়, মাটির স্বাস্থ্যের উন্নতিতে এর উপকারী প্রভাব রয়েছে, যার পরিনাম স্বরূপ গাছের বৃদ্ধি ভালো হয় অনেক গবেষণাতে দেখা গেছে মাটি উপরিস্তরে সামান্য দশার তুলনা্য় সৌরিকরণের সম্য় মাটির তাপমাত্রা প্রায় -১০ ডিগ্রি বেড়ে যায়, যার ফলে বিভিন্ন প্রকারের আগাছা এবং মৃত্তিকা জনিত রোগ সৃষ্টিকারী জীবানু ধংস হয়ে যায়  

মাটির সৌরিকরণ কীভাবে করবেন:

  • সোলেনাইজেশন বা সৌরিকরণের জন্য সর্বপ্রথম জমিতে লাঙ্গল দিয়ে ভালভাবে চাষ দিতে হবে।
  • চাষ দেওয়ার পর আর্দ্রতা বজায় রাখার জন্য জমিতে হাল্কা সেচ দিতে হবে।
  • সেচ দেওয়ার পর স্বচ্ছ পলিথিন মাটির ওপর বিছিয়ে দিতে হবে এবং পলিথিনের কিনারা অংশ মাটি দিতে চাপা দিতে হবে যাতে ভেতরের তাপ বাইরে না বেরিয়ে আসতে পারে।
  • মাটির সৌরিকরণ ৩-৬ সপ্তাহ পর্যন্ত করা হয়, কিন্তু এর বেশীদিন সৌরিকরণ হলে মাটির গভীর পর্যন্ত আগাছা দমন করা সম্ভব হয়।

মাটির সৌরিকরণ করার সময় নিম্নলিখিত বিষয় গুলিতে খেয়াল রাখতে হবে:

  • মাটি সৌরিকরণ করার জন্য সবসময় পাতলা এবং স্বচ্ছ পলিথিনের (২০-২৫ মাইক্রোমিটার) ব্যবহার করতে হবে।এই ধরনের পলিথিন মোটা বা কালো পলিথিনের তুলনায় মাটিতে বেশী তাপ শোষণ করে।
  • পলিথিন সিট বিছাবার আগে জমি সমতল করে নেওয়া দরকার।
  • পলিথিন সিট সবসময় মাটির সাথে সেঁটে বিছাতে হবে, যাতে তার নিচে যত সম্ভব কম বাতাস থাকে, এরকম করলে সূর্যের তাপের শোষন এবং মাটির তাপমানের বৃদ্ধি বেশী হয়।
  • পলিথিন সিট বিছাবার আগে জমিতে হালকা সেচ (৫০ মিমি)দেওয়া খুবই জরুরি। এর ফলে মাটির মধ্যে তাপের সঞ্চালন বেশী গভীর পর্যন্ত হয় এবং সাথে সাথে মাটির মধ্যস্থ সুক্ষ্ম জীবানুর ওপর সূর্যের তাপের প্রভাব বেশী পড়ে। সুতরাং মাটির সৌরিকরণের জন্য মাটিতে আর্দ্রতার ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ।  
  • মাটির সৌরিকরণ এপ্রিল থেকে জুন মাসের মধ্যে করতে হবে যখন আবহাওয়া বেশী গরম থাকে, আর খেয়াল রাখতে হবে যে জমিতে যেন কোন ফসল না থাকে। এই সময় স্বচ্ছ পলিথিন দিয়ে বেশী সময় ধরে বিছিয়ে রেখে সৌরিকরণ করলে ভালো ফল পাওয়া যায়। সৌরিকরণের ওপর হওয়া বভিন্ন গবেষণা থেকে প্রাপ্য তথ্য অনুসারে দেশের উত্তরভাগে মে থেকে জুন মাসে এবং দক্ষিণ ভাগে এপ্রিল থেকে মে মাসে মাটি সৌরিকরণ করা অতি উত্তম, কারণ এই মাস গুলিতে বায়ুমন্ডলীয় তাপমান বেশী এবং আকাশ পরিস্কার থাকে।
  • মাটির সৌরিকরণের ভালো ফল পাওয়ার জন্য এর সময়কাল ৮-১০ সপ্তাহ হওয়া জরুরি, যাতে শেকড় ও গাঁট থেকে উৎপন্ন হওয়া আগাছাও নষ্ট করা যায়।
  • মাটির সৌরিকরণ করার পর জমিতে চাষ না দেওয়াই ভালো, কারণ এরফলে সৌরিকরণের প্রভাব কমে যায়। অতএব বীজ বোনার জন্য ডিব্লার বা অন্য যন্ত্রের ব্যবহার করা উচিৎ, যা কেবল মাদা তৈরির কাজ করবে। সরাসরি সিডড্রিল দিয়ে বপন করা লাভদায়ক।

মৃত্তিকা সৌরিকরণের লাভ:

  • মাটির সৌরিকরণের ফলে ৪-৬ সপ্তাহের মধ্যে বেশীরভাগ আগাছা নিয়ন্ত্রণ করা যায়, কিন্তু কন্দ এবং কান্ড থেকে উৎপন্ন আগাছা যা মাটির অনেক গভীরে হয়, তা নিয়ন্ত্রণ করার জন্য ৮-১০ সপ্তাহ সৌরিকরণ করলে লাভ পাওয়া যাবে।
  • মাটির সৌরিকরণের ফলে মাটির মধ্যস্থ সূক্ষ্ম জীবানু সমূহ এবং আগাছার বীজ নস্ট হয়ে যাওয়ার ফলে গাছের বাড় ভালো হয় এবং ফসল উৎপাদন বেশী হয়।
  • এছাড়া মাটির মধ্যস্থ উপকারী জীবানুর সক্রিয়তা, খাদ্যোপাদানের দ্রবণিয়তা এবং তাদের উপলব্ধতা বেড়ে যায় যার ফলে ফসলোৎপাদন বেশী হয়।
  • দেশের বিভিন্ন প্রান্তে হওয়া গবেষণা থেকে দেখা গেছে মাটির সৌরিকরণের ফলে পেঁয়াজের উৎপাদন ১০০% থেকে ১২৫%, চীনাবাদামে ৫২% এবং তিলে ৭২% পর্যন্ত বৃদ্ধি হয়েছে।  
  • মাটি সৌরকরণ একটি পরিবেশ হিতৈষি পদ্ধতি হওয়ায় প্রয়োগকর্তার কাছে এটি সম্পুর্ণ সুরক্ষিত। এর ব্যবহারের ফলে জমিতে চাষের খরচও অনেক কমে ।
  • মাটির সৌরিকরণে কৃষকরা সুস্থ্য ফসল তো পানই সাথে কীটনাশক, ছত্রাকনাশক এবং আগাছানাশকের ওপর হওয়া খরচ থেকেও মুক্তি পাওয়া যায়।

মৃত্তিকা সৌরিকরণে সমস্যা:

  • মাটি সৌরিকরণে ব্যবিহৃত পলিথিন সিটের ক্রয়মূল্য বেশী হওয়ায় এই পদ্ধতিটি ব্যয়বহুল, যার ফলে এর ব্যবহার অর্থকরী ফসল, পুষ্পোৎপাদন, সবজি ইত্যাদির চারা তৈরীতেই সিমিত।
  • এই পদ্ধতির ব্যবহার সেইসব জায়গাতেই সফলতা লাভ করে যেখানে ৫০-৬০ দিন পর্যন্ত আকাশ পরিস্কার থাকে আর তাপমান ৪০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডের বেশী থাকে।
  • জল দাঁড়ায় এরকম জমি ও এলাকার জন্য মাটি সৌরিকরণ পদ্ধতি উপযুক্ত নয়।

তথ্য  সূত্র : ইফকো কিষাণ

রুনা নাথ(runa@krishijagran.com)

            

 

 

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters