High Yield Paddy - ধানের বাম্পার ফলন দেবে হিটলার -711, ফসল ১৩০ দিনের মধ্যে প্রস্তুত হবে ফসল

KJ Staff
KJ Staff
High yield paddy (Image Credit - Google)
High yield paddy (Image Credit - Google)

ধান প্রধানত খরিফ মরসুমের ফসল। কৃষকরা ধান চাষের প্রস্তুতিও শুরু করেছেন। এ সময় অনেক কৃষক তাদের জমিতে ধানের চারা রোপণ করছেন।

সম্প্রতি বাজারে প্রচুর ধানের জাত আসতে শুরু করেছে। এর মধ্যে একটি উন্নত জাত হল হিটলার – ৭১১। হিটলার নাম শুনলেই মনে হতে পারে অনেকের যে, আর সাথে জার্মানির হয়তো কোন সম্পর্ক আছে। অবশ্যই তা নয়।

ধানের প্রতিটি জাতগুলিরই নিজস্ব বৈশিষ্ট্য রয়েছে, তবে বর্তমানে একটি জাত তার নামের কারণে এবং অল্প সময়ে পরিপক্ক হয়ে যাওয়ায় প্রচুর আলোচনায় রয়েছে।

কম সময়ে ফসল বাজারজাত (Crop ready in less time) -

অল্প দিনে ফসল বাজারজাত করা যাবে এই জাতের ধানে। এই জাতের ধানের নাম হিটলার -৭১১, যা একটি সংকর জাত। এই জাতটি হায়দরাবাদ ভিত্তিক একটি সংস্থা প্রস্তুত করেছে। বিশেষ বিষয় হ'ল ইউপি থেকে বিহার পর্যন্ত কৃষকরা হিটলার -৭১১ লাগানোর প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

এখন আমাদের রাজ্যেও কৃষকরা (West Bengal) উত্তর প্রদেশ, পাঞ্জাব, হরিয়ানা, ছত্তিসগড়, অন্ধ্র প্রদেশ, তেলেঙ্গানা, এবং বিহার প্রভৃতি অঞ্চলে এই জাতটির বৃহত আকারে  আবাদ করছে। কেন

এটি হিটলার -৭১১ নামকরণ করা হয়েছিল?

এই প্রজাতির ধানের হিটলার -৭১১ নামকরণ কেন করা হয়েছিল, তার সঠিক কোন কারণ বা ব্যাখ্যা পাওয়া যায়নি।  তবে এর এক পাইকার জানিয়েছেন যে, গত বছর এটি এলাহাবাদের পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে জন্মেছিল। এ বছর এটি পূর্বাঞ্চলেও পাঠানো হয়েছে।

কত দিন ফসল প্রস্তুত হবে?

হিটলার -৭১১ জাতের ধান এমন একটি জাত যা ১২৫ থেকে ১৩০ দিনের মধ্যে পরিপক্ক হয়।

হিটলার -৭১১ জাতের ফলন (Yield of Hitler-711 variety) -

এই জাত থেকে একর প্রতি ১৮ কুইন্টাল ফলন হবে বলে দাবি করা হচ্ছে। এ ধরণের চাল চিকন, যা খেতে খুব সুস্বাদু। হিটলার -৭১১ সংকর হলেও এর স্বাদটি দেশি ধানের মত বলেই বলা হচ্ছে। এই জাতের ধান চাষে ধান নুইয়ে পড়ে না কারণ এটি একটি বামন প্রজাতি এবং গাছটি ১৯০ সেন্টিমিটার লম্বা হয়।

আরও পড়ুন - Crop Care - গাছের বৃদ্ধি কমে যাচ্ছে অথবা অপরিপক্ক অবস্থায় ফল ঝরে যাচ্ছে? জানুন প্রতিকারের উপায়

বিশ্বে ধানের ১ লক্ষেরও বেশি প্রজাতি রয়েছে। এর মধ্যে প্রায় ৬০ হাজার প্রজাতি ভারতে পাওয়া যায়। ফিলিপাইনের আন্তর্জাতিক চাল গবেষণা ইনস্টিটিউটে (IRRI) সবচেয়ে বেশি ধানের জিনব্যাঙ্ক রয়েছে। আমাদের দেশ ধানের দ্বিতীয় বৃহত্তম উৎপাদক, তবে রফতানিকারক দেশ হিসাবে তা প্রথম স্থান অধিকার করেছে। কেন্দ্রীয় কৃষি মন্ত্রকের মতে, ২০১৯-২০২০সালে ১১৮.৮৭ মিলিয়ন টন ধান উত্পাদিত হয়েছিল। এর মধ্যে রবি মরসুমে ১৬.৫৯ মিলিয়ন টন উত্পাদনও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

আরও পড়ুন - Organic fertilizer - গোবর ও গোমূত্র থেকে চাষের জন্য জৈব সার কীভাবে তৈরি করবেন?

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters