ফার্মের আয় বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে শিল্পোদ্যোগ

Friday, 04 October 2019 10:51 PM

ডঃ ত্রিলোচন মহাপাত্র, সেক্রেটারি (DARE) এবং ডিজি (ICAR), কটক-এ জাতীয় ধান্য গবেষণা কেন্দ্রে গিয়েছিলেন এবং সেখানের কার্যক্রম পর্যালোচনা করেছেন। ডিরেক্টর জেনারেল ভিকাস আর-এবিআই, আইসিএআর-এনআরআইআর দ্বারা চালু করা দুই মাসের "স্টার্ট-আপ এগ্রি-বিজনেস ইনকিউবেশন প্রোগ্রাম" -র ২২ জন অংশগ্রহণকারীদের সাথে মতবিনিময় করেছেন। তিনি উদ্ভাবনী প্রোটোটাইপগুলির প্রশংসাও করেন এবং সেগুলি উন্নত করার জন্য তার মূল্যবান পরামর্শ প্রদান করেছেন।

ডাঃ মহাপাত্র ইনস্টিটিউটে নবনির্মিত সেন্ট্রাল জিনোমিক্স অ্যান্ড কোয়ালিটি ল্যাবরেটরি, সোস্যাল সায়েন্স বিল্ডিং এবং অন্যান্য সুযোগ-সুবিধাও পরিদর্শন করেন। খামার আয় বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে বিভিন্ন পদ্ধতির মাধ্যমে, কৃষি ও জড়িত খাতগুলিতে মূল্য শৃঙ্খলার সম্ভাবনা বাড়ানো হচ্ছে। ত্রিলোচন মহাপাত্র, আইসিএআর-এনআরআইআরের তৎকালীন পরিচালক প্রথমে চাল নিয়ে এই ক্রিয়াকলাপ চালানোর চেষ্টা করেছিলেন।

তাঁর মতে, ধানের মূল্য শৃঙ্খলার পাশাপাশি কিছু মৌলিক সুবিধা যুক্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। যেমন -

  • আর্থিক ক্ষতি এবং বাজারের উত্কর্ষতা সত্ত্বেও বিভিন্ন আর্থ-সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কারণে ধান চাষের উপর আধিপত্য বিস্তার হয়।
  • মানসম্পন্ন ধানের জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বাজারে চাহিদা বেশ স্পষ্ট
  • কৃষক ছাড়াও অন্যান্য স্টেক হোল্ডাররা এই শৃঙ্খলে যোগ দিতে পারেন, যার ফলে অতিরিক্ত কর্মসংস্থান সৃষ্টি হয় এবং
  • গবেষণা প্রতিষ্ঠানগুলি দ্বারা উন্নত মানের, বিশেষত ধানের জাতগুলি এক্সটেনশনে কম বিনিয়োগের মাধ্যমে দ্রুত ছড়িয়ে যেতে পারে।

উপরের যুক্তিগুলি বিবেচনায় রেখে, মডেলের জন্য পরিকল্পনা শুরু করা হয়েছিল। পর্যালোচনা চলাকালীন আইসিএআর-এনআরআরআইয়ের পরিচালক ড. এইচ. পাঠক উপস্থিত ছিলেন।

ভিকাস আর-এবিআইয়ের লক্ষ্য সৃষ্টির শুরু থেকে নতুন শিল্পদ্যোগ প্রচার করা। এই কর্মসূচীটি ভারত, নয়াদিল্লি, কৃষক কল্যাণ বিভাগের রাষ্ট্রীয় কৃষি বিকাশ যোজনা দ্বারা আরকেভিওয়াই-আরএএফটিএএআর এগ্রি বিজনেস ইনকিউবেটার প্রকল্পের অধীনে অর্থায়ন করা হয়েছে।

স্বপ্নম সেন (swapnam@krishijagran.com)



Krishi Jagran Bengali Magazine Subscription Subscribe Online

Download Krishi Jagran Mobile App

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.