বাংলায় গ্রামীণ নারীর ক্ষমতায়নে 'আনন্দধারা' সফল হয়েছে

Tuesday, 15 January 2019 02:08 PM
কৃষিকাজে নারী

কৃষিকাজে নারী

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি রাজ্যের গ্রামীণ নারীর ক্ষমতায়নে 'আনন্দধারা' প্রকল্পটির সাফল্য তুলে ধরেছেন। আন্তর্জাতিক গ্রামীণ নারী দিবস উপলক্ষে, তিনি টুইটারে বলেন যে, গ্রামের নারীর ক্ষমতায়ন রাজ্যগুলিতে স্ব-সাহায্য গোষ্ঠীর মাধ্যমে করা হচ্ছে। "আজকে গ্রামীণ নারীর আন্তর্জাতিক দিবস। আমাদের সরকার স্ব-সাহায্যের মাধ্যমে গ্রামীণ নারীর ক্ষমতায়নের জন্য কাজ করছে। এই বিষয়ে আনন্দধারা খুব সফল হয়েছে।" তার টুইটারে মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, "পশুপালনের সাহায্যে গ্রামীণ নারীদের অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি নিশ্চিত করার জন্য এবং রাজ্য সরকার গ্রামীণ নারীদের মধ্যে পশুপালনের জন্য প্রাণী বিতরণ করা হয়েছে।"

২০১২ সালে শুরু হওয়া 'আনন্দধারা' প্রকল্পটি গ্রামীণ দরিদ্রদের জন্য একটি দারিদ্র্য বিরোধী কর্মসূচী যা নারীদের স্ব-সাহায্য গোষ্ঠী (এসএইচজি) সংগঠনের মাধ্যমে বাস্তবায়িত হয়। এই পরিকল্পনার লক্ষ্য হচ্ছে গ্রামীণ দরিদ্র এবং দুর্বল ব্যক্তিদের স্ব-পরিচালিত প্রতিষ্ঠানগুলিতে সংগঠিত করা এবং জীবিকা সংগ্রহের জন্য তাদের সাহায্য করা। বিশ্বব্যাপী কৃষি ও গ্রামীণ উন্নয়নে গ্রামীণ নারীর ভূমিকা পালন করার জন্য প্রতিবছর আন্তর্জাতিক গ্রামীণ নারী দিবস উদযাপন করা হয়।

- দেবাশিষ চক্রবর্তী

English Summary: Anandadhara is successful by women from west bengal

আপনার সমর্থন প্রদর্শন করুন

প্রিয় অনুগ্রাহক, আমাদের পাঠক হওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আপনার মতো পাঠকরা আমাদের কৃষি সাংবাদিকতা অগ্রগমনের অনুপ্রেরণা। গ্রামীণ ভারতের প্রতিটি কোণে কৃষক এবং অন্যান্য সকলের কাছে মানসম্পন্ন কৃষি সংবাদ বিতরণের জন্যে আমাদের আপনার সমর্থন দরকার। আপনার প্রতিটি অবদান আমাদের ভবিষ্যতের জন্য মূল্যবান।

এখনই অবদান রাখুন (Contribute Now)

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.