এশিয়ার বৃহত্তম পুষ্প পণ্যবীথি

KJ Staff
KJ Staff

এশিয়ার বৃহত্তম পুষ্প বিপণন কেন্দ্রটি অবস্থিত কলকাতাতে। পবিত্র গঙ্গার তীরে, হাওড়া ব্রিজের নীচে, মল্লিক ঘাটের পুষ্পের বাজারটি আনন্দনগরী কলকাতার এক প্রাণবন্ত দিক, যা কলকাতার শোভা বহুগুণে বৃদ্ধি করে। এই পুষ্প পণ্যবীথিতে কয়েক কোটি সুগন্ধি এবং বর্ণময়ী পুষ্প আছে, যার শোভা এবং ঘ্রাণ মানুষকে আকৃষ্ট করে। 

সর্ববৃহৎ এবং প্রাচীনতম এই পুষ্প পণ্যবীথীটি শতাব্দী জুড়ে তার বর্ণে মানুষকে মোহিত ও মুগ্ধ করে। প্রায় ১৬৩ বছর আগে ১৮৫৫ সালে রাজা রামমোহন মল্লিক এটি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। ভারতের তথা এশিয়ার বৃহত্তম ফুলের মার্কেট রূপে এটিকে গণ্য করা হয়। এখানে প্রতিদিন প্রায় ২০০০ জন পুষ্প বিক্রেতা বিভিন্ন পুষ্পের সমাহার নিয়ে আসেন বহিরঙ্গন বাজারে তাদের পুষ্প ব্যবসাকে সুপ্রতিষ্ঠিত করার জন্যে।

পুষ্পের এই শোভা কে ক্যামেরাবন্দী করতে প্রত্যহ কিছু ক্যামেরাম্যান এখানে আসেন। এক দশক আগে আগুনে এই মার্কেটটি পুরে যায়। তবে কিংবদন্তী ফিনিক্সের মতো এটি ধীরে ধীরে তার পূর্ববস্থায় ফিরে যায় এবং এখনও পুষ্পের আভিজাত্য রূপ নিয়ে পূর্বের মতই সমানভাবে এটি বিরাজ করছে কলকাতা নগরীর প্রাণকেন্দ্রে। 

মূলত এই মার্কেটটিকে কেন্দ্র করে পুষ্প- ব্যবসায়ীদের  ব্যবসা গড়ে উঠেছে। সামাজিক আচার, অনুষ্ঠান, আধ্যাত্মিক ক্ষেত্র, বিবাহ - সকল ক্ষেত্রেই পুষ্পের প্রয়োজন হয়। হাওড়ার এই পুষ্পের পণ্যবীথিটিতে সকল রকমের পুষ্পের সন্ধান মেলে। প্রচলিত আছে, যদি কোন পুষ্প এই পণ্যবীথিতে না মেলে, তাহলে ধরে নিতে হবে, সম্ভবত সেই পুষ্পটির অস্তিত্বই নেই।  

 

ব্যবসার ক্ষেত্রে এই পণ্যবীথিটি বৃহৎ ভূমিকা গ্রহণ করেছে। শহর এবং শহরতলিতে পুষ্প বিতরণের মূল উৎস এটি। তবে শুধু শহরের মধ্যেই এই মার্কেটটির পুষ্প রপ্তানির ব্যবসা সীমাবদ্ধ নয়। এখান থেকে ইউরোপসহ সারা দেশ বিদেশে পাইকারি হারে পুষ্প সরবরাহ করা হয়।  

স্বপ্নম সেন (swapnam@krishijagran.com)

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters