(Poultry farming) পোল্ট্রি ফার্মিংয়ের জন্য পাওয়া যেতে পারে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ৮ লক্ষ পর্যন্ত এককালীন ভর্তুকি

KJ Staff
KJ Staff
Poultry farm
Poultry farm

হাঁস-মুরগির পালন ব্যবসাকে উত্সাহ প্রদান ও তা সম্প্রসারণের লক্ষ্যে, রাজ্য সরকার সম্প্রতি পোলট্রি শিল্পের জন্য সরকারি অনুদানের বিষয়ে একটি নতুন প্রকল্প ঘোষণা করেছে। সংবাদ অনুসারে, এই কর্মসূচির আওতাভুক্ত সুবিধাভোগীদের বিভিন্ন ভাবে ভর্তুকি প্রদান করা হবে। এই প্রকল্পের আওতায় এককালীন ভর্তুকি ৮ লক্ষ টাকা পর্যন্তও পাওয়া যেতে পারে।

পোল্ট্রি ফার্মিং স্কিম সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন -

নবান্নের সংবাদ অনুযায়ী, এ রাজ্যে ডিম ও হাঁস-মুরগির ছানা উৎপাদনে যে-সকল ব্যবসায়ী বিনিয়োগ করবেন, তাঁরাই অনুদান পাবেন। প্রশাসনের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ‘‘আমাদের রাজ্যে ডিমের উৎপাদনে ঘাটতি রয়েছে। এ রাজ্যে ডিমের চাহিদা ২.৬ কোটির মতো। প্রতিদিন প্রায় ১.৭ কোটি ডিম উৎপন্ন হয়। সুতরাং, চাহিদা মেটাতে ভিন্ রাজ্য থেকে প্রতিদিন প্রায় এক লক্ষ ডিম আমদানি করতে হয়।’’ রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষ কর্তাদের বক্তব্য, বিনিয়োগকারীদের উৎসাহিত করে প্রকল্প প্রচলন করলে একদিকে যেমন বেকারদের কর্ম সংস্থান হবে, অপরদিকে ডিমের চাহিদাও মেটানো যাবে।

মন্ত্রীসভায় আজ গৃহীত প্রস্তাবে হয়েছে বলা হয়েছে, ডিম উৎপাদনের জন্য পোলট্রি ফার্ম তৈরি করলে বিদ্যুতের বিল এবং জমি রেজিস্ট্রেশন বাবদ খরচের একটি বড় অংশ ভর্তুকি হিসেবে পাবেন ব্যবসায়ীরা। এ ছাড়াও প্রতি ১০ হাজার মুরগি বা হাঁস পালনে ফার্ম-পিছু এককালীন আট লক্ষ টাকা ভর্তুকি দেবে সরকার। এর আগে প্রতিপালনের জন্য প্রাণীসম্পদ উন্নয়ন দফতর থেকে গ্রামে গ্রামে হাঁস-মুরগি বিলি করা হয়েছিল। কিন্তু তা তেমন ফলপ্রসূ না হওয়ায় এ বার পোলট্রি ফার্মের জন্য উৎসাহ প্রকল্প প্রচলনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার, বলে অভিমত অনেকের।

Govt subsidy on poultry farming
Govt subsidy on poultry farming

তামিলনাড়ুতেও শুরু হয়েছে এমনই এক প্রকল্প। সেখানে মহিলা পশুপালকদের (হাঁস ও মুরগী পালন) দেওয়া হচ্ছে ১০০ শতাংশ অনুদান। এই স্কিমটি মূলত অর্থনৈতিকভাবে দরিদ্র ব্যাকগ্রাউন্ডের মহিলাদের অন্তর্ভুক্ত করবে।

প্রতিবেদন অনুসারে, ৩০% সুবিধাভোগী দ্রাবিড় সম্প্রদায় থেকে নির্বাচিত হবেন। বাছাই প্রক্রিয়ায় নিঃস্ব নারী, বিধবা, ট্রান্সজেন্ডার এবং বিভিন্ন ব্যক্তিকে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।

আরও তথ্যের জন্য, আপনি এখানে যোগাযোগ করতে পারেন -

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, পশুপালন বিভাগ, হারুর, তামিলনাড়ু।

Image source - Google

Related link - (Pension for farmer) কৃষকরা মাত্র ৫৫ টাকা বিনিয়োগে সরকারের এই প্রকল্পে পাবেন প্রতি মাসে ৩০০০ টাকা মাসিক ভাতা

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters