Young Farmer Forum : চাষবাসের কৌশল হাতে কলমে শিখতে ইন্ডিয়ান ইয়ং ফারমার ফোরামই ভরসা

Farming life
Farming life

কৃষিকার্যের উন্নতিকল্পে দেশে বহুদিন ধরেই নেওয়া হচ্ছে বিভিন্ন প্রকল্প। ছোট চাষি থেকে শুরু করে বড় চাষি, সরকারি প্রকল্পের সহায়তায় লাভবান হচ্ছেন সবাই। উন্নত প্রযুক্তি, আর কৃষি বিজ্ঞানীদের তত্ত্বাবধানে দিনকে দিন উন্নত হচ্ছে চাষের কৌশলগুলিও। তামিলনাড়ু রাজ্যের সারাভানন শেখরন নামের এক কৃষি কর্মকর্তার তত্ত্বাবধানে, গড়ে উঠেছে 'ইন্ডিয়ান ইয়ং ফারমার ফোরাম'।

ভারতীয় যুব কৃষি ফোরাম-(Indian Young Farmer Forum)

এই প্রতিষ্ঠানের মূল লক্ষ্যই হল, চাষবাসের উন্নতিকল্পে, প্রতিষ্ঠিত কৃষকদের মাধ্যমে চাষবাসে আগ্রহী ব্যক্তিদের শিক্ষাদান। এরমধ্যেই এই প্রতিষ্ঠানের সদস্য সংখ্যা ৭৫ ছুঁয়েছে, যাদের সবারই ৪৫-এর মধ্যে বয়স। প্রতিষ্ঠানের উপদেষ্টা কমিটিতে বিভিন্ন বয়সী অভিজ্ঞ কৃষকরা দায়িত্বে রয়েছেন। সারভাননের কথা অনুযায়ী, গত ১০ বছরে অনেক মানুষকে তিনি দেখেছেন যারা মাঝবয়সে এসে নিজের পেশা বদলে চাষের জমিতে বিনিয়োগ করে কৃষিকার্যে মনোনিবেশ করেছেন। এই ফোরামের সব সদস্যই যে পেশাদার চাষী তা নয়। প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে এমন অনেকেই যুক্ত আছেন, যারা আংশিক চাষবাসের সঙ্গে যুক্ত।

'ইন্ডিয়ান ইয়ং ফারমার ফোরাম'-এর প্রতিষ্ঠাতা, সারভানন শেখরন: (Indian young farmer Forum Founder Saravanan Chandrasekaran)

'ইন্ডিয়ান ইয়ং ফারমার ফোরাম'-এর প্রতিষ্ঠাতা, সারভানন শেখরনের কথায় ধরা যাক। কুমারাগুরু ইনস্টিটিউট অফ এগ্রিকালচারের এই প্ৰশাসনিক কর্মকর্তা তামিলনাড়ুর পোলাচিতে ১৫ একর জমি চাষবাসের জন্য কিনে ফেলেছেন। ওই জমিতে তিনি গড়ে তুলেছেন, সুন্দর একটি ফুড ফরেস্টও। যেখানে দেশি পেয়ারা, সাপোটা, তেঁতুল গাছ নিয়ে গড়ে উঠেছে অসাধারণ এক বনাঞ্চল! সারভানন জানিয়েছেন, প্রকৃতির আপন খেয়ালে এই গাছগাছাড়ির জঙ্গল বেড়ে উঠছে। যেই ফল বাগানে ফলছে, তা মানুষই খাবার জন্য কিনে নিচ্ছেন। বিভিন্ন পেশার বিভিন্ন মানুষ, এই চাষবাসের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন বা যুক্ত হতে চাইছেন তা সারভাননের কথা শুনেই জানা গেল।

আইটি কর্মীদের চাষবাসের প্রতি আকর্ষণ :(Cultivation attraction by IT people)

প্রদীপ নামের যেমন এক বেঙ্গালুরুর আইটি কর্মচারী, একটা আস্ত অর্গানিক ফার্ম কিনে ফেলেছেন, সুষ্ঠুভাবে সেখানে চাষাবাদ করবেন বলে। এক একরের কিছুটা কম জায়গা নিয়ে তৈরী হয় এই ফার্ম মাস গেলে ফসল ফলিয়ে এবং বিক্রি করে বেশ ভালো আয় করছে। আরও এক আইটি কর্মচারী শিবরাম আয়াস্বামী, যেমন তাঁর ফার্মে মুরগি এবং বিদেশী দামি প্রজাতি গরু পালন করে বেশ লাভের মুখ দেখছেন। শুধুমাত্র পোল্ট্রি অথবা ডেয়ারিই নয়, এর পাশাপাশি শিবরামের ফার্মে, নারকেল , ভুট্টা, বাজরাও চাষ হচ্ছে।

আরও পড়ুন:Soil, water-less farming: মাটি, জল ছাড়াই ফলবে ফসল, আবিষ্কার হলো নয়া কৃষিযন্ত্র

কৃষিকার্যের সঙ্গে যুক্ত, যাদের নাম ও কাজের কথা ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা সারভাননের থেকে জানা গেল, এরা প্রত্যেকেই ইন্ডিয়ান ইংয় ফারমার ফোরামেরে সদস্য। এই প্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষা লাভ করে আজ অনেকেই হয়ে উঠছেন সফল কৃষক। সদস্যদের একজনের কথায়, কেউ যদি কৃষিকার্য ভালোবেসে পেশা হিসাবে বেছে নেয়, তাহলে সে সহজেই বুঝতে পারবে চাষবাসের মতন লাভজনক ব্যবসা গোটা দুনিয়ায় একটিও নেই। 

আরও পড়ুন: Integrated Farming ইন্টিগ্রেটেড ফার্মিং অথবা সংহত চাষের মাধ্যমে চাষিভাইয়েদের লক্ষ্মী লাভ

Like this article?

Hey! I am কৌস্তভ গাঙ্গুলী. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters