স্টার্টআপ ও উদ্ভাবনগুলির নিজস্ব দিশা - সিমা ২০১৯

Monday, 25 February 2019 02:29 PM

'প্রতিযোগিতা মূলক কৃষিতে উদ্ভাবনের ক্ষেত্র' এই চিন্তনের উপর ভিত্তি করে এবারও সিমা (২৪-২৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, প্যারিস - নর্ড ভিলোপিন্টে প্রদর্শনী কেন্দ্র,  ফ্রান্স ) দুটি ক্ষেত্র নিয়ে মূল প্রদর্শনী  স্থানে ৩৪টি নতুন কোম্পানী, উদ্ভাবন ও প্রযুক্তি নিয়ে । প্রথম ক্ষেত্রটি ৪ নং হলে স্টার্ট আপ ভিলেজ পার্টনারশিপ লা ফার্মে ডিজিটাল মাধ্যমে প্রদর্শীত হয়ে গেল। দ্বিতীয়টি হল নং ৬ এ  ইনোভেশন ভিলেজ হিসেবে ছিল।

‘লা ফার্মে ডিজিটাল স্টার্ট আপ ভিলেজ’ - বিশেষ প্রদর্শনীর চিন্তা ভাবনায় স্টার্ট আপ ভিলেজ ছিল ৪ – এ প্রিসিসন ফার্মিং কেন্দ্রের একেবারে কেন্দ্রে। এই স্টার্টআপ ভিলেজ নতুন সংস্থাগুলিকে বড় ব্যবসার দিশা ও নাম খুঁজে পেতে সাহায্য করল। গতবারের তুলনায় দ্বিগুন স্টার্টআপ সমেত ৩৪ টি নতুন কোম্পানী নিয়ে এবার আবিস্কারের সম্মুখে।

  • ‘এগ্রিকমিউনিটি’ ছিল কৃষিক্ষেত্রের বিশেষজ্ঞদের দিয়ে যা ফসলের রোগ ও পোকা নিয়ে নানা নিরীক্ষণকে পরস্পরের মধ্যে আলাপ আলোচনার পরিমন্ডল তৈরী করেছিল।
  • ‘এগ্রিকনমি’ – হল এমনই একটি জায়গা যেখানে চাষিরা নানা ব্যাপ্তির কৃষি উপকরণ – সার, বীজ ইত্যাদিকে খুঁজে পেলেন।
  • ‘এগ্রিইচেঞ্জ’ – একটি অনলাইন ক্যাশ-হিন ব্যবস্থা যেখানে চাষিরা খুঁজে পাচ্ছেন কৃষি যন্ত্রের অনলাইন পরিষেবা ব্যাবস্থা।
  • ‘এগ্রি সলিউশন’- এমন একটি কোম্পানী যা চাষিদেরসহজ সমাধান প্রদান করছে। এটি ‘ইরিক্যাম’ ক্যামেরার উদ্ভাবক যা কৃষিক্ষেত্রের সেচ এক নজরেই বলে দেয়। ‘থ্রি ডি’ প্রযুক্তি সমৃদ্ধ এই ব্যাবস্থা সেচের কি অগ্রগতি সহজেই চাষিকে জানিয়ে দেয়। কৃষকদের স্মার্ট ফোনের সঙ্গে সমন্বিত এটি সুন্দর ও কার্যকরী ব্যবস্থা।
  • ‘এয়ারিনোভ’ – ড্রোন দ্বারা মাঠের ম্যাপিং করে। এক্সরে স্ক্যানারের মতো এয়ারিনোভ ফসলের বেড়ে ওঠার গুরুত্বপূর্ণ পর্যায়ে চাষিদের ফসলের দেখভালে সহায়তা করে।
  • ‘এপি এগ্রো’ – একটি ক্ষেত্র যেখানে কৃষিক্ষেত্রের ফরাসী ও ইউরোপের তথ্যের আদানপ্রদান ঘটে। এটি কৃষির নানা সংযুক্ত ক্ষেত্রের মধ্যে তথ্যের আদানপ্রদানএর মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট বিষয়ক বিভাগগুলির উন্নতি ও কার্যকরী সমাধানে সহায়তা করে।
  • ‘অ্যাপটিমিজ’ – দৈনন্দিন জীবনে চাষিদের লাভের দিশা দেখায় ও তাদের কাজের সময় নিয়ন্ত্রণ করে।
  • ‘ক্যাপ্টেন ফার্মার (এগ্রিটেল) একটি কার্যকরী মাধ্যম যা চাষিদের নিজেথেকেই বিক্রিতে সাহায্য করে।
  • ‘কার্বন বি’ – কৃষিক্ষেত্রে ও ট্র্যাক্টরে হাইপার স্প্রেকটাল ক্যামেরা, ড্রোন ও রোবট প্রসতুতকারক।
  • ‘ক্লিক পার্সেলে’ – কৃষককে তাদের কাজ , উৎপাদন, গুণবত্তা এমনকি সহযোগীদের ও খরচ খরচা নিয়ন্ত্রণে ও কার্যকরী করতে সহায়তা করে।
  • com - এই সাইটের সহায়তায় কৃষকরা তাদের উৎপাদিত শস্য যেমন গম, বার্লি, ভুট্টা ইত্যাদি বিক্রি ও সঠিক মূল্যে সার কিনতে পারবেন।
  • ‘একিলিব্রে’ – এটি একটি মুক্ত ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম যা সহযোগী টেঁকসই কৃষির দিশারী।
  • ‘এনের বায়ো ফ্লেক্স’ - একটি স্বয়ংভর পরিষেবামূলক প্রতিষ্ঠান যা কৃষিতে জ্বালানীর বিশেষজ্ঞ। এটি চাষিদের কৃষিতে জ্বালানীর ব্যাপারে দিশা দেয়(জ্বালানীর কার্যকরী ব্যবহারে ও সরবরাহ চুক্তিতে)।
  • ‘এক্সোটিক সিস্টেম’ – যানবাহন, শিল্প প্রতিষ্ঠান ও কৃষিকাজের যন্ত্রাংশ তৈরি করে গ্রাহকদের সহায়তা করে।
  • ‘ফার্ম লিপ’ – কৃষকদের জমি পরিচালনায় কার্যকরি পরিসেবা প্রদানকারী একটি সংস্থা।
  • ‘ফার্মভিজ’ – কৃষক ও কোঅপারেটিভ সংস্থার ফসল উৎপাদনের পরিমানের ধারনা দেয়।
  • ‘Go4ioT’ – মাঝারি ও ক্ষুদ্র শিল্পকে সহায়তা দেয় কানেকটেড যন্ত্রাংশের দেখাশোনায়। এটি KHIKO একটি প্রফেশনাল ট্র্যাক্টর যা কৃষি ও নির্মানকাজের যন্ত্রাংশের চুরি যাওয়া থেকে রক্ষা করে।
  • HKTC টেকনোলজি ডিজাইন – সয়ংক্রিয় যন্ত্রপাতি যা মানুষের হস্তক্ষেপ ছাড়াই নিয়ন্ত্রিত হয় তা তৈরি করে। এর কার্যকারিতা গুলি হল নির্দেশনা দেওয়া, অটোমেশন, হাইড্যলিকস, যন্ত্রিক ওয়েলডিং ইত্যাদি।
  • ‘জাভেলট’ – শস্যভান্ডারের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রনে সহায়তা প্রদানকারী সংস্থা।
  • ‘কের’ইনভ’ – যানবাহনকে নিয়ন্ত্রণ করে উৎপাদনশীলতা ও নিরাপত্তা প্রদান করে my-optimo.com নামের সাইটের মাধ্যমে যন্ত্রের সমস্ত তথ্য হাতের কাছে রাখতে সহায়তা করে স্মার্ট ফোন, ট্যাবলেট ও কম্পিউটারের মাধ্যমে।
  • ‘কেনটেশিয়া’ – একটি অনলাইন প্ল্যাটফর্ম যা কৃষি, নির্মানক্ষেত্র ও যানবাহনের যন্ত্রাংশ সরবরাহ করে।
  • ‘লিটাস’ – উদ্ভাবনী সমাধান তৈরি করে ব্রিডারদের সিদ্ধান্ত গ্রহনে সহায়তা প্রদান করে।
  • ‘এল ভি ডিজিটাল’ – কৃষিক্ষেত্রে পরিসেবা প্রদানকারী কোম্পানী। এটি ওয়েবসাইট ও পোর্টাল যেমন traktorpool.de/fr ( পুরানে কৃষি যন্ত্রপাতির জন্য) এবং www.baupool.com/fr (নির্মানকার্যের যন্ত্রপাতি বেচা-কেনার জন্য)
  • ‘মিমোসা’ – এটি কৃষি ও খাবার-দাবারের প্রথম ক্রাউড ফান্ডিং সাইট।
  • ‘মাই ইজি ফার্ম’ – প্রিসিসন ফার্মিং কে সহজ করে। সুপারিশকৃত ম্যাপ তৈরি করে, কৃষি যন্ত্রপাতির তথ্য আদান-প্রদান করে, ফসলের রোগ-প্রতিরোধ সংক্রান্ত তথ্যের আদানপ্রদান করে।
  • ‘নাইয়ো টেকনোলজিস’ – কৃষি রোবোট এবং সয়ংক্রিয়তা বিষয়ে অনুসন্ধান করে।
  • ‘পারফার্মার’ – কৃষকদেরকে সহায়তা প্রদান করে – শস্য পর্যায় নিয়ন্ত্রণে, শস্য বিক্রয়করণ ও কৃষি যন্ত্রপাতি নিয়ন্ত্রণে।
  • ‘পাইলটের সা ফার্মে’ – ভবিষ্যতের জন্য ডিজিটাল যন্ত্রপাতি প্রনয়ন করছে যা কৃষকদের “farming common sense” যোগাবে।
  • ‘প্রেসিফিল্ড’ – মাটি পরীক্ষা করে কৃষকদের জানায়। সেচ ব্যবস্থা, আঙ্গুরের বাগান ও উদ্যানপালনে বিশেষ উদ্ভাবনী সহায়তা প্রদান করে।
  • ‘স্যামসিস’ – ডিজিটাল, ব্যবহারোপযোগী যন্ত্রপাতি তৈরি করে কোঅপারেটিভ, নির্মানকারক ও কৃষকদের জন্য।
  • ‘সেনক্রপ’ – রেনগজ ও অ্যানেমোমিটার সরবরাহ করে।
  • টিপ ট্যাপ প্রো – কৃষকদের প্রিয় রেডিও স্টেশনের মাধ্যমে তাদেরকে নানা জরুরি তথ্য সরবরাহ করে।
  • com – কৃষকদের দ্বারা কৃষকদের জন্য প্রথম কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া দেওয়ার সাইট।
  • ‘ওয়েদার মেসার্স’ – আবহাওয়া সংক্রান্ত সম্পূর্ণ তথ্য কৃষকদের প্রদান করে।

- রুনা নাথ (runa@krishijagran.com)

Share your comments



Krishi Jagran Bengali Magazine Subscription Subscribe Online

Download Krishi Jagran Mobile App

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.