দেশজুড়ে আগামীতে জলসঙ্কটের প্রস্তুতি দরকার – “ওয়াটার ফুটপ্রিন্ট ম্যানেজমেন্ট”

Monday, 01 January 0001 12:00 AM

ভারতের বিজ্ঞানীরা গবেষণা করে বলেছেন, আগামী ১০ বছরে সারাদেশে জলসঙ্কট তৈরি হবে। সর্বস্তরে ব্যবহারের জলের সঙ্গে পানীয় জলের জন্য হবে হাহাকারের পরিস্থিতি। সম্প্রতি ‘দ্য টাইমস্ অফ ইন্ডিয়ায়’ প্রকাশিত বিজ্ঞানীদের রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০৩০ সালে ভারতের মাত্র অর্ধেক জনসংখ্যার জন্য প্রয়োজনীয় জল থাকবে। ‘ওয়াটার ফুটপ্রিন্টস অর্গানাইজেশন’ দেখেছে, বর্তমানে কৃষিতে ৮৮ শতাংশ জল ব্যবহার হলেও ২০২৫ ও ২০৫০ সালে যথাক্রমে ৫৪ ও ৮৫ শতাংশ সারা দেশের জল শিল্প ও গৃহস্থালী ক্ষেত্রই শুষে নেবে। আর তাই, এখন থেকেই শিল্পগুলিকে তার প্রস্তুতি শুরু করার পরামর্শ বিজ্ঞানীদের।

তথ্যে প্রকাশ -

  • ১০০ গ্রাম সোয়াবিন উৎপাদনে জল লাগে ২৭৫ লিটার,
  • ১০০ গ্রাম গমে ১৮৩ লিটার আবার,
  • ১০০ গ্রাম চালে ১৪০ লিটার সেখানে
  • ১০০ গ্রাম চকোলেটের পিছনে জলের খরচ ১৭২০ লিটার আর
  • ২৫০ গ্রামের একটি সূতির টিশার্টে ২৪৯৫ লিটার।

এসব চমকে দেওয়া গবেষণার মধ্যেই অবশ্য বেশকিছু খাদ্য ও গাড়ি সংস্থা নিজেদের জল সংরক্ষণ ও পূনর্ব্যবহারের পদ্ধতি শুরু করে দিয়েছে। তবে আগামীতে কৃষির জন্য জল কি থাকবে ? তা সময়ই বলবে।    

- রুনা নাথ

English Summary: Water crisis

আপনার সমর্থন প্রদর্শন করুন

প্রিয় অনুগ্রাহক, আমাদের পাঠক হওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আপনার মতো পাঠকরা আমাদের কৃষি সাংবাদিকতা অগ্রগমনের অনুপ্রেরণা। গ্রামীণ ভারতের প্রতিটি কোণে কৃষক এবং অন্যান্য সকলের কাছে মানসম্পন্ন কৃষি সংবাদ বিতরণের জন্যে আমাদের আপনার সমর্থন দরকার। আপনার প্রতিটি অবদান আমাদের ভবিষ্যতের জন্য মূল্যবান।

এখনই অবদান রাখুন (Contribute Now)

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.