বহুবর্ষজীবী অর্থকরী ফসল পান (Cash Crop Piper Betle Cultivation) চাষে সার প্রয়োগ ও পরিচর্যা পদ্ধতি

Monday, 11 January 2021 12:20 AM
Piper Betle Cultivation (Image Credit - Google)

Piper Betle Cultivation (Image Credit - Google)

পান, একটি গুরুত্বপূর্ণ লতাজাতীয় বহুবর্ষজীবী অর্থকরী ফসল, যার বৈজ্ঞানিক নাম পাইপার বিটল। ভারতবর্ষে পানের উৎপাদনের দুই-তৃতীয়াংশ হয় পশ্চিবঙ্গে। এ ছাড়াও, ওড়িশা, অসম, উত্তরপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র ও তামিলনাড়ু রাজ্যে পানের চাষ হয়। পশ্চিমবঙ্গে প্রায় ৯০০০ হাজার হেক্টর এলাকায় পানের চাষ হয়। এর মধ্যে পূর্ব মেদিনীপুর ও হাওড়া জেলা প্রধান, এছাড়াও হুগলি, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং নদিয়া-তেও পানের চাষ হয়। স্থানীয় ভাবে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলি সহ বীরভূম, বাঁকুড়া, মুর্শিদাবাদ জেলাতেও কিছু কিছু পানের চাষ হয়।

পরিচর্যা ও সার প্রয়োগ (Fertilizer application) -

নতুন বরজে বীচন বসানোর এক মাসের মধ্যে গাঁট থেকে নতুন চারা বের হয়। চারা বের হলে মাটি ধরতে হবে এবং প্রতিটি লতার পাশে একটি করে সরকাঠি পুঁতে লতাটি কুশখড় দিয়ে বেঁধে দিতে হবে। লতা যেমন লম্বা হবে তেমন ভাবে মাসে ৩-৪ বার পাট বা সরকাঠিতে বেঁধে দিতে হবে। ৬-৮ মাসের মধ্যে লতাটি প্রায় ২ মিটারের মতো লম্বা হয়ে যায়, তখন তাকে উপরের দিকে বাড়তে না দিয়ে নীচের দিকে পাশিয়ে দিতে হবে, নীচের অংশের পাতাগুলি তুলে নিয়ে লতা গোল করে পাক দিতে হয় ও পাকানো লতা মাটি চাপা দিতে হবে। এই পদ্ধতিকে ভাঁজ দেওয়া বলে। এই কাজটি বাংলা ও সাঁচি জাতের পানের ক্ষেত্রে বছরে ৫-৬ বার আর মিঠা জাতের পানের ক্ষেত্রে ৩-৪ বার করতে হয়।

বর্ষাকালে সাধারণত লতার বাড় বেশি হয় আর শীতকালে তা কম হয়। লতা নামানোর সময় খেয়াল রাখতে হবে যে লতার নীচের পাতাটি যেন মাটির স্তর থেকে কয়েক ফুট উঁচুতে থাকে। পান বরজে সাধারণত বছরে ৪ থেকে ৫ বার সার ব্যবহার করা হয় এবং জৈব সার বেশি পরিমাণ ব্যবহার হয়। সাধারণত বৈশাখ, আষাঢ়, ভাদ্র, কার্তিক ও পৌষ মাসে সার ব্যবহার করা হয়। ৫ কাঠা বরজের জন্য প্রতি বছরে ১০০ কেজি খোল, ৮ কেজি ক্যালসিয়াম অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট, ১৫ কেজি সিঙ্গেল সুপার ফসফেট ও ১৬ কেজি মিউরেট অফ পটাশ প্রয়োজন। এই পরিমাণ সার ৬ ভাগে ভাগ করে প্রতি দু’মাস অন্তর প্রয়োগ করতে হবে। সারি থেকে ১৫ সেমি দূরে অল্প মাটি খুঁড়ে সার প্রয়োগ করতে হবে।

আরও পড়ুনপান চাষে রোগের আক্রমণ ও তার প্রতিকার (Disease of betel vine)

সেচ (Irrigation)-

পান ভিজে ও স্যাতসেঁতে আবহাওয়া পছন্দ করে। তাই বরজের ভিতরে ঐরূপ আবহাওয়া বজায় রাখার জন্য গ্রীষ্মের সময় প্রায় প্রতি দিন গাছের গোড়ায় জল দিয়ে ভিজিয়ে রাখতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে যেন সেচ বেশি না হয়। সেচ বেশি হলে শিকড় পচা বা পাতা ঢলে পড়া রোগ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। শীতকালে বা বছরের অন্য সময়ে ৩-৪ দিন অন্তর প্রয়োজনমাফিক সেচ দিতে হবে। বরজের ভিতরে যাতে অতিরিক্ত জল জমে না যায় তার জন্য প্রয়োজনীয় নিকাশি ব্যবস্থা রাখতে হবে।

পান তোলা -

নতুন বরজে তিন থেকে চার মাসের মাথায় পান তোলা শুরু করা যেতে পারে। পাঁচ-ছয় দিন অন্তর পাতা বোঁটা সমেত তুলতে হবে। প্রথম বছরে একটি বরজ থেকে যে পান পাতা পাওয়া যাবে, দ্বিতীয়-পঞ্চম বছরে তার চেয়ে অনেক বেশি পাওয়া যাবে। বাংলা জাতের পানে বছরে গড়ে গাছ প্রতি ৬০-৮০টি পাতা পাওয়া যায়। মোটামুটি এক বিঘা বরজে প্রতি বছর হাজার চল্লিশেক টাকা লাভ থাকে।

আরও পড়ুনপান চাষ করে এক বিঘা বরজ থেকে লাভ করুন চল্লিশ হাজার টাকা (Betelvine Cultivation)

English Summary: Fertilizer application and care method in perennial cash crop Piper betle cultivationv

আপনার সমর্থন প্রদর্শন করুন

প্রিয় অনুগ্রাহক, আমাদের পাঠক হওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আপনার মতো পাঠকরা আমাদের কৃষি সাংবাদিকতা অগ্রগমনের অনুপ্রেরণা। গ্রামীণ ভারতের প্রতিটি কোণে কৃষক এবং অন্যান্য সকলের কাছে মানসম্পন্ন কৃষি সংবাদ বিতরণের জন্যে আমাদের আপনার সমর্থন দরকার। আপনার প্রতিটি অবদান আমাদের ভবিষ্যতের জন্য মূল্যবান।

এখনই অবদান রাখুন (Contribute Now)

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.