বাজারে এসে গেল নতুন প্রজাতির পালং শাক, লাভের মুখ দেখছে কৃষক

Monday, 07 January 2019 05:16 PM

দিল্লী এবং তার আশেপাশের অঞ্চলগুলির বিভিন্ন বাজার ও মান্ডিতে এই বৎসর শীতকালীন ফসল হিসাবে এক ধরণের নতুন প্রজাতির পালং শাকের উদ্ভব হয়েছে, এই নতুন ধরণের পালং শাকের ব্যাপারে জনমানসে একটি অধিক চর্চার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। পালং-এর এই ধরণের জাতটিকে মানুষ খুব পছন্দ করছে এবং বিগত কয়েকদিন এই ধরণের পালং শাকের বিক্রি খুব বেড়েছে, পালং-এর এই জাতটির গুণাবলী সাধারণ পালং-এর তুলনায় অনেক বেশি গুণসম্পন্ন যে কারণে এই পালং বিক্রি করে বিক্রেতারা বেশি মুনাফা অর্জন করেছে।

চওড়া ও মোটা পাতা

এই নতুন ধরণের পালং শাকটির বিশেষ একটি বৈশিষ্ট্য হল এই শাকের পাতা সাধারণ পালংশাকের তুলনায় অনেকখানি চওড়া ও মোটা। বৈজ্ঞানিকরা মনে করছেন এই পালং জাতটি নিশ্চয়ই কোনো উচ্চ হাইব্রিডের ফসল, তাই এই জাতের পালং-এর পাতা যতটা মোটা রান্না করার পর এই পাতা ততটাই নরম ও সুস্বাদু হয়ে ওঠে।

সাধারণ পালং শাকের তুলনায় বেশি সবুজ

এই নতুন ধরণের পালং শাকের একটি বিশেষ বৈশিষ্ট্য হলো এটি সাধারণ জাতের পালং-এর তুলনায় একটু বেশি সবুজ। বৈজ্ঞানিকদের মতে এই পালং এর সংকরায়ন এতটাই সফল হয়েছে যে এই জাতটি সাধারণ পালং-এর তুলনায় অনেক বেশি প্রোটিন ও ভিটামিন সমৃদ্ধ।

আরও পড়ুন আলুর নাবি ধ্বসা নিয়ন্ত্রণে সময়মত উপযুক্ত ব্যবস্থা নিতে হবে

ফসল কাটা সহজ

এই জাতের পালং-এর অপর একটি গুণ হলো এই পালং কাটা অনেক বেশি সহজ ও সুলভ, কারণ এই পালং শাকের পাতা যতটা বড় অ মোটা, ভেতরে এই পাতা অনেকটাই নরম।

কৃষকদের পক্ষে লাভজনক হয়েছে

এই পালং শাক বাজারে একদম নতুন ধরণের তাই মানুষের কাছে খুবই পছন্দের সবজি হয়ে উঠেছে খুব তাড়াতাড়ি, ফলে কৃষকদের সাথে সাথে সবজি বিক্রেতারাও বেজায় মুনাফা কামাচ্ছে। এই পালং শাক বাজারে এসেছে বলে যে পালং-এর দাম অনেকটা চড়ে গেছে তাও নয় তবে চাহিদা যেভাবে বাড়ছে তাতে বোঝা যাচ্ছে যে আগামীদিনে এর মূল্য উত্তোরোত্তরভাবে বৃদ্ধি পেতে চলেছে। 

- প্রদীপ পাল (pradip@krishijagran.com)



Krishi Jagran Bengali Magazine Subscription Subscribe Online

Download Krishi Jagran Mobile App

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.