ইউপির প্রথম মহিলা বাস চালক প্রিয়াঙ্কার সাফল্যের কাহীনি

KJ Staff
KJ Staff
প্রতীকী ছবি।

কৃষিজাগরন ডেস্কঃ আজকাল মহিলাদের গাড়ি বা বাইক চালাতে দেখা যায়। মেয়েরাও পুরুষদের মতই বিমান চালাচ্ছে। কিন্তু বাস ও ট্রাকের মতো ভারী যানবাহন চালাতে নারীদের খুব কমই দেখা যায়। যাইহোক, আজকাল উত্তরপ্রদেশ রোডওয়েজ বাস সার্ভিসে মহিলা চালক নিয়োগ করা হয়েছে। এখন রাজ্যের রাস্তায় সরকারি বাস চালাতে দেখা যাবে মহিলা চালকদের। UPSRTC সম্প্রতি বাস চালক নিয়োগ করেছে, যার মধ্যে 26 জন মহিলা চালককেও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। প্রিয়াঙ্কা এই মহিলা বাস চালকদের একজন। প্রিয়াঙ্কার সাফল্যের গল্প খুবই সংগ্রামী। বাসচালক প্রিয়াঙ্কার স্বামী মারা গেছেন। সংসার চালাতে স্বামীর মৃত্যুর পর চা বিক্রিও করেছেন। পরিবার তাকে ছেড়ে চলে গেলেও প্রিয়াঙ্কা হাল ছাড়েননি এবং অবশেষে সাফল্য পান। চলুন, ইউপি ট্রান্সপোর্ট সার্ভিসের প্রথম মহিলা বাস চালক প্রিয়াঙ্কা সম্পর্কে জেনে নেই।

প্রিয়াঙ্কা শর্মা বিহারের বাঁকা জেলার হরদৌরি গ্রামের বাসিন্দা। 2002 সালে রাজীব নামে এক ব্যক্তির সাথে তার বিয়ে হয়। প্রিয়াঙ্কা ও রাজীবের দুই ছেলে রয়েছে। যদিও স্বামী মদ্যপানে আসক্ত ছিল, যার কারণে তার মৃত্যু হয়েছে। স্বামীর মৃত্যুর পর প্রিয়াঙ্কার ওপর নেমে আসে দুঃখের পাহাড়। জীবিকার বোঝা এসে পড়ল তার ওপর। প্রিয়াঙ্কাকেও তার দুই ছেলের ভবিষ্যৎ গড়তে হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ রমেশ ভাই গোবর ও গোমূত্র ভিত্তিক চাষ করে কোটি কোটি টাকা আয় করছেন, তার পণ্য বিদেশে বিখ্যাত

পরিবারের দায়িত্ব গিয়ে পড়ে প্রিয়াঙ্কার ওপর। এ সময় তাকে আর্থিক সংকটে পড়তে হয়। বিহার থেকে দিল্লিতে এসেছেন প্রিয়াঙ্কা। তখন প্রিয়াঙ্কার কাছে জমাকৃত পুঁজির নামে কিছুই ছিল না। স্বামীর চিকিৎসার জন্য বাড়ি ও গহন আগেই বিক্রি হয়ে গিয়েছিল। দিল্লির একটি কারখানায় কাজ শুরু করেন প্রিয়াঙ্কা। তিনি দেড় হাজার টাকা বেতন পেতেন। পরে একটি চায়ের দোকান খোলা হয়। দোকানের আয় দিয়ে সংসারের খরচ মেটানো খুবই কঠিন ছিল।

পরিবারের চাহিদা পূরণ করছিল না, তাই ট্রাক চালানোর সিদ্ধান্ত নেন প্রিয়াঙ্কা। প্রথমে হেলপার হিসেবে কাজ করতেন। পরে ট্রাক চালক হয়ে সংসারের জন্য রোজগার শুরু করেন। তবে প্রিয়াঙ্কার বাবা-মা এবং ভাইরা তার ট্রাক চালানো পছন্দ করেননি। প্রিয়াঙ্কার থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে নেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ ক্যাপসিকাম চাষে ভাগ্য বদলে গেল, বছরে এক কোটি টাকা আয় করছেন এই কৃষক

প্রিয়াঙ্কা ট্রাক চালাতে অন্য রাজ্যে যেতেন। এ কারণে তিনি শিশুদের কম সময় দিতে পারতেন। তিনি বাচ্চাদের হোস্টেলে পাঠিয়েছিলেন যাতে তারা ভাল শিক্ষা লাভ করতে পারে এবং বাড়িতে একা থাকতে না হয়। প্রিয়াঙ্কার জীবন বদলে যায় যখন তিনি UPSRTC-তে সরকারি চাকরি পান এবং বাস চালানোর জন্য প্রথম মহিলা সরকারি বাস চালক হন।

Published On: 22 October 2022, 05:21 PM English Summary: The success story of Priyanka, UP's first woman bus driver

Like this article?

Hey! I am KJ Staff . Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters