Krishakbandhu Govt. Scheme – কৃষকরা এবার থেকে সরকারের পক্ষ থেকে পাবেন ১৬ হাজার টাকা, কীভাবে, জানুন বিস্তারিত

KJ Staff
KJ Staff
CM Mamata Banerjee (Image Credit - Google)
CM Mamata Banerjee (Image Credit - Google)

পশ্চিমবঙ্গের কৃষকদের হয়তো এবার সত্যই কিছুটা অর্থনৈতিক সুরাহা হতে চলেছে। রাজ্যের কৃষকদের জন্য সব থেকে বড় সুখবর হল কৃষকবন্ধু প্রকল্পের আওতায় বাড়ল অনুদান বাবদ অর্থ। রাজ্যে তৃতীয়বারের মতো ক্ষমতায় আসীন হয়ে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ‘কৃষকবন্ধু’ প্রকল্পে ভাতা বৃদ্ধি করার কথা বৃহস্পতিবার নবান্নে ঘোষণা করেছেন।

২০২১ -এর নির্বাচনে তৃতীয়বারের জন্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পদে মনোনীত হন মাননীয়া। রাজনৈতিক তর্জা অব্যাহত থাকলেও দায়িত্ব নিয়েই নিজের দেওয়া প্রতিশ্রুতি রাখলেন মাননীয়া মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিগত বৃহস্পতিবার নবান্নে বৈঠকে তিনি ঘোষণা করেন, এবার থেকে ‘কৃষকবন্ধু’ প্রকল্পের আওতায় রাজ্যের কৃষকদের ভাতা ৫০০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০ হাজার টাকা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। বলা বাহুল্য, তাঁর এই সিদ্ধান্তে যারপরনাই খুশি কৃষকবন্ধুরা।  

কৃষকদের জন্য ১৬ হাজার টাকা (16 thousand rupees for farmers) –

এতদিন পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের কৃষকবন্ধু প্রকল্পে রবি ও খরিফ মরসুমে দুটি কিস্তিতে একর প্রতি পাঁচ হাজার টাকা অনুদান দেওয়া হত। পাশাপাশি ১৮-৬০বছর বয়সি কোনও কৃষকের মৃত্যু হলে ক্ষতিপূরণ বাবদ পরিবারকে সরকার এককালীন দু’লাখ টাকা অনুদান হিসেবে দিত। এর সাথেই এ বছর থেকে যুক্ত হল বেশ কিছু অতিরিক্ত সুবিধা। যেমন, প্রথমেই তিনি কৃষকদের স্বার্থে পিএম কিষাণ অনুমোদিত করলেন, যার থেকে কৃষকরা আর্থিক সহায়তা পাবেন ৬০০০ টাকা। আর ক্ষমতায় মনোনীত হয়েই নিজের কথা রেখে ৫ হাজারের পরিবর্তে ১০ হাজার টাকা অনুদান ঘোষণা করলেন নবান্ন থেকে। অর্থাৎ দুই প্রকল্পে বার্ষিক মোট ১৬ হাজার টাকা পাবেন কৃষকরা। রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্তে খুশি সকলেই।

যারা এখনও এই প্রকল্পে  যোগদান করেননি তারা শীঘ্রই নিজেকে রেজিস্ট্রেশন করুন আর সরকারের থেকে সুবিধা গ্রহণ করুন।

আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় নথি (Important Document)-

  • আগ্রহী আবেদনকারীদের তাদের আবাসিক (বাসস্থানের) নথি জমা দিতে হবে।

  • যেহেতু এই প্রকল্পটি কৃষক এবং কৃষি শ্রমিকদের উন্নতির লক্ষ্যে করা হয়েছে, তাই নিবন্ধকরণের জন্য তাঁদের কর্ম সংক্রান্ত নথি দাখিল করতে হবে।

  • রাজ্য সরকার ঘোষণা করেছে যে ১৮-৬০ বছর বয়সের মধ্যে সকল আবেদনকারী এই বীমার সুবিধা পেতে পারেন, তাই তাঁদের বয়সের প্রমাণপত্র জমা দিতে হবে।

  • প্রার্থীদের পরিচয়পত্রের প্রমাণ স্বরূপ তাদের ভোটার বা আধার কার্ডের অনুলিপি জমা দিতে হবে।

  • সমস্ত আর্থিক স্থানান্তর ব্যাংক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে হবে। সুতরাং, আবেদনকারীদের অবশ্যই তাদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট সম্পর্কিত বিশদ জমা দিতে হবে।

পশ্চিমবঙ্গ কৃষক বন্ধু প্রকল্প অনলাইন নিবন্ধন ফর্ম এবং লগ ইন প্রক্রিয়া –

‘পশ্চিমবঙ্গ কৃষক বন্ধু প্রকল্প’, -এ অনলাইনে নিবন্ধন করতে হলে আবেদনের জন্য কৃষকদের আবেদনপত্রটি অনলাইনে পূরণ করতে হবে। এখনও পর্যন্ত এই প্রকল্পে সংযুক্ত হয়েছেন প্রায় ৫০ লক্ষ কৃষক। ‘দুয়ারে সরকার’ প্রকল্পের মাধ্যমেও বেশ কিছু কৃষককে এই প্রকল্পে নিবন্ধন করানো হয়েছে।

অনলাইন আবেদন (Online Apply) -

১) এই প্রকল্পের ফর্মটি পূরণ করার জন্য আপনাকে/কৃষককে অফিসিয়াল ওয়েবসাইট https://krishakbandhu.net/–এ লগ ইন করতে হবে।

২) হোম পেজ আসার পর আপনাকে ‘কৃষি বিভাগ’ ট্যাবে ক্লিক করতে হবে।

৩) এর পরে নতুন আবেদনের জন্য ‘কৃষক বন্ধু সাইন আপ’ অপশনে ক্লিক করতে হবে।

৪) এরপর নিবন্ধকরণ ফর্মটি প্রদর্শিত হবে।

৫) আপনাকে প্রয়োজনীয় বিশদটি পূরণ করতে হবে এবং তার পরে সাবমিট বাটনে ক্লিক করুন আবেদন জমা দেওয়ার জন্য।

আবেদন ফর্মটি পূরণ করার পরে, প্রার্থীরা ব্যবহারকারীর নাম এবং পাসওয়ার্ড পাবেন, যার সাহায্যে তারা এই প্রকল্পের জন্য লগ ইন করতে পারবেন।

৬) আপনি সরাসরি এই লিঙ্ক থেকেও রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন - https://krishakbandhu.net/users/sign_up

অতিরিক্ত তথ্যের/সহায়তার জন্য আগ্রহী প্রার্থীরা সকাল ১০ টা থেকে ৬ টা-র মধ্যে হেল্পলাইন নম্বর ৮৩৩৬৯৫৭৩৭০ –এ ফোন করতে পারেন।

অথবা এই মেল আইডি-তে মেল করতে পারেন - krishak.bandhu@ingreens.in.

আরও পড়ুন - PM KISAN - প্রধানমন্ত্রী কিষাণের কিস্তি পাননি? এই নম্বরগুলিতে কল করুন এবং অবিলম্বে ২০০০ টাকা পান

বৃহস্পতিবার নবান্নের বৈঠকে কৃষক নেতা রাকেশ টিকাইত (Rakesh Tikait) মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে প্রতিনিধি দল সহ সাক্ষাৎ করেন। মাননীয়ার সিদ্ধান্তে তারা যে কতটা খুশি হয়েছেন, সংবাদমাধ্যমের সামনেও তারা সে প্রসঙ্গে বলেন।

আরও পড়ুন - PMMSY – মাছ চাষ প্রসার করতে ফিশারি স্কিমে সরকারের বিনিয়োগ ২০,০৫০ কোটি টাকা, মাছ চাষীরা আজই এই প্রকল্পের সুবিধা নিন

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters