Lord Buddha Jayanti: আগামীকাল বুদ্ধ জয়ন্তী, জানেন কি এই দিনটির বিশেষত্ব কি?

KJ Staff
KJ Staff
Lord Buddha (Image Credit - Google)
Lord Buddha (Image Credit - Google)

আগামীকাল বুদ্ধ পূর্ণিমা, যা বছরে একবারই আসে। এই বুদ্ধ পূর্ণিমা বা বুদ্ধ জয়ন্তী পালন করা হয় ভগবান বুদ্ধের জন্ম বার্ষিকী হিসাবে। এই তিথি বৈশাখ মাসে পড়ে এবং ভারতের উত্তর-পূর্ব অংশে এটি সমারোহের সাথে পালিত হয়। এই বছর, লর্ড বুদ্ধের ২৫৮৩ তম জন্মবার্ষিকী।

বৌদ্ধ ধর্মের প্রধান ৫ টি নীতি (The 5 main principles of Buddhism) -

১. জীবমাত্র হিংসা থেকে বিরত থাকা।  

২.  চুরি করা থেকে বিরত থাকা। 

৩. ব্যাভিচারী না হওয়া।

৪.  মিথ্যা না বলা 

৫. মাদক দ্রব্য থেকে বিরত থাকা।

আচার (Rituals) -

  • এই দিনে বৌদ্ধ মন্দিরে আচার অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

  • বুদ্ধের উপাসকরা বোধি গাছ পরিক্রম করেন এবং জল ঢালেন ও আলো দিয়ে তা সাজিয়ে তোলেন।

  • এর পরে, তাঁর অনুগামীরা ভগবান বুদ্ধের জীবন সম্পর্কিত গল্প এবং উপদেশ প্রচার করেন।

  • শেষে বুদ্ধের অনুগামীরা বৌদ্ধ ধর্মগ্রন্থ পাঠ করেন এবং ধ্যান করেন।

  • তারা সমাজকল্যাণমূলক কর্মে অংশ গ্রহণ করেন, যেমন দরিদ্রদের ভিক্ষা দান, আর্তের সেবা প্রমুখ।

সুতরাং, বুদ্ধা পূর্ণিমা উদযাপন হ'ল শুদ্ধতম অনুভূতির সাথে প্রার্থনা করা, এবং বৌদ্ধধর্ম যা শান্তি, অহিংসতা এবং সম্প্রীতির জন্য দাঁড়িয়েছে তা স্বীকৃতি দেওয়া ও গ্রহণ করা।

এই দিনটির গুরুত্ব -

যেহেতু বুদ্ধ জয়ন্তীর তারিখটি এশিয়ান লুনিসোলার ক্যালেন্ডারের উপর ভিত্তি করে পালিত হয়, সেহেতু প্রতি বছর এই তারিখটি পরিবর্তিত হয়। যদিও এটি সাধারণত বৈশাখ মাসে পূর্ণিমা তিথিতে পড়ে, তবে পশ্চিমী গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডার অনুসারে এই তারিখটি পৃথক হয়।

তাঁর মতাদর্শের অষ্টমার্গ হল -

১. সম্যক দৃষ্টি

২. সম্যক সঙ্কল্প

৩. সম্যক বাক্য

৪. সম্যক কর্ম

৫. সম্যক জীবিকা

৬. সম্যক প্রযত্ন

৭. সম্যক স্মৃতি

৮. সম্যক সমাধি

বৌদ্ধ শিক্ষা অনুসারে অষ্টাঙ্গিক মার্গের এই আটটি উপদেশকে সম্যক প্রজ্ঞা, সম্যক শীল ও সম্যক সমাধি এই তিন ভাগে ভাগ করা হয়ে থাকে। 

ভগবান বুদ্ধ সম্পর্কে (Lord Buddha) - 

১) ভগবান বুদ্ধ শাক্য পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন, তবে প্রকৃত সত্যের খোঁজে তিনি সম্পূর্ণভাবে বিলাসবহুল জীবন ছেড়ে মাত্র ৩০ বছর বয়সে সংসার ত্যাগ করেন, জাগতিক মোহ থেকে সমস্ত রকম বন্ধন থেকে মুক্ত হয়ে তিনি তপস্যা শুরু করেন।

২) ভারতের বৌদ্ধ ধর্মের  অনুগামীরা সাধারণত সাদা পোশাক পরতে পছন্দ করে এবং নিরামিষ খাবার গ্রহণ করে থাকেন। এই দিনে ‘ক্ষীর’ গ্রহণে বিশ্বাসী তারা। কারণ কথিত রয়েছে, কোনও এক মহিলা এই দিনে গৌতম বুদ্ধকে এক বাটি দুধ দিয়েছিলেন।

৩) বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে বহু ভক্ত বিহারের বোধগয়াতে অবস্থিত মহাবোধি মন্দিরে (A UNESCO World Heritage Site) যান। বোধি মন্দির বৌদ্ধ ধর্মের এক পবিত্র স্থান। বিশ্বাস করা হয় এখানে ভগবান বুদ্ধ তাঁর জীবনের এক গভীরতম জ্ঞান অর্জন করেছিলেন।

৪) সুতরাং, বুদ্ধ পূর্ণিমা উদযাপন হ'ল শুদ্ধতম অনুভূতির সাথে প্রার্থনা করা, এবং বৌদ্ধধর্ম যা শান্তি, অহিংসতা এবং সম্প্রীতির প্রচার করে, তা স্বীকৃতি দেওয়া ও গ্রহণ করা।

শ্রীলঙ্কা, ইন্দোনেশিয়া, মায়ানমার, কম্বোডিয়া, জাভা, তিব্বত ও মঙ্গোলিয়ার মতো অন্যান্য দেশও বৌদ্ধ জয়ন্তীর এই বিশেষ দিনটিকে ‘Vesak’ হিসাবে উদযাপিত করে এবং তা উত্সবের মধ্য দিয়ে পালন করে থাকে।

আরও পড়ুন - বাড়িতে সহজ উপায়ে ঔষধি গাছের চাষ করে হয়ে যান লাভবান

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters