পোস্ট অফিসে এই প্রকল্পে বিনিয়োগ করুন আপনার অর্থ আর রিটার্ন পান দ্বিগুণ (Kisan Vikas Patra)

Monday, 02 November 2020 06:33 PM
KVP

KVP

আপনি যদি আপনার বিনিয়োগের পরিমাণ দ্বিগুণ করতে চান, তবে অবশ্যই পোস্ট অফিস কিষাণ বিকাশ পত্রপ্রকল্পে বিনিয়োগের কথা ভাবুন। এটি কেন্দ্রীয় সরকার সমর্থিত খুব জনপ্রিয় একটি ক্ষুদ্র সঞ্চয় প্রকল্প। কিষাণ বিকাশ পত্রপ্রকল্পটিতে বিনিয়োগ নিরাপদ এবং এটি ভবিষ্যতে ভাল আয় নিশ্চিত করে। এই প্রকল্পের সুদের হার সরকার ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে নির্ধারণ করে।

ইন্ডিয়া পোস্ট ওয়েবসাইট অনুযায়ী, কিষাণ বিকাশ পত্র প্রকল্পের মেয়াদপূর্তি এখন ১১৩ মাস থেকে ১২৪ মাস করা হয়েছে। অর্থাৎ, এই প্রকল্পে আপনার বিনিয়োগ এখন ১২৪ মাসে দ্বিগুণ হবে। এই প্রকল্পের সুদের হার ১ লা এপ্রিল, ২০২০ থেকে ৬.৯০ শতাংশ করা হয়েছে, যা আগে ৭.৬০ শতাংশ ছিল।

উদাহরণস্বরূপ বলা যায়, যদি কোনও ব্যক্তি আজ কিষাণ বিকাশ পত্রে এক লাখ টাকা বিনিয়োগ করেন, তবে ১২৪ মাস পরে, তিনি এই প্রকল্পের মাধ্যমে দুই লাখ টাকা পাবেন। বৈশ্বিক অর্থনৈতিক মন্দা এবং ব্যবসায়িক অনিশ্চয়তার মধ্যে যে কোনও বিনিয়োগকারীর জন্য এই গ্যারান্টিযুক্ত বিনিয়োগ নিঃসন্দেহে একটি বড় সুসংবাদ। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে, বিশ্বজুড়ে সংকটের সৃষ্টি হয়েছে,  শেয়ারবাজারগুলিও এই সময়ে তীব্র আর্থিক সংঘর্ষের সম্মুখীন হচ্ছে। তাই বিনিয়োগকারীরা ভবিষ্যতে গ্যারান্টিযুক্ত রিটার্ন পেতে পোস্ট অফিসের এই স্কিমটিতে বিনিয়োগ করতে পারেন। ১২৪ মাসের ম্যাচিউরিটি পিরিয়ডে গ্রাহকরা টাকা তুলতে পারবেন। গ্রাহকরা এই যোজনায় নিজের অর্থ দ্বিগুন করতে ১০ বছর ও ৪ মাসের জন্য টাকা ইনভেস্ট করতে পাবেন।

 কিষাণ বিকাশ পত্র যোজনাতে টাকা ইনভেস্ট করতে হলে গ্রাহকের বয়স ন্যূনতম ১৮ বছর হতে হবে। এর পাশাপশি শুধু সিঙ্গল অ্যাকাউন্ট নয়,জয়েন্ট অ্যাকাউন্ট খোলার সুবিধা রয়েছে। কেভিপি-তে ১০০০, ৫০০০, ১০০০০, ৫০০০০ টাকার সার্টিফিকেট রয়েছে, যা কেনা যেতে পারে। অর্থাৎ নিজের সেভিংস বাড়াতে এবং ব্যাঙ্ক ব্যালেন্স বাড়াতে এই যোজনায় টাকা ইনভেস্ট করতে পারেন। 

Kisan Vikas Patra

Kisan Vikas Patra

কিষাণ বিকাশ পত্রের নিয়মাবলী (Rules of Kisan Bikash Patra) -

আবেদনকারীকে প্রাপ্তবয়স্ক এবং ভারতীয় আবাসিক হতে হবে।

তিনি নিজের নামে অথবা নাবালিকার পক্ষে কিষাণ বিকাশ পত্রের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

ট্রাস্টগুলিও এই প্রকল্পে বিনিয়োগের যোগ্য।

দ্রষ্টব্য - এইচইউএফ (হিন্দু অবিভক্ত পরিবার) এবং এনআরআই দের কেভিপিতে বিনিয়োগ গ্রহণযোগ্য নয়।

কিষাণ বিকাশ পত্র প্রকল্পের সুবিধা (Advantages of Kisan Bikash Patra scheme) -

সকলের সাধ্যমতো রাশি জমা - একটি কেভিপি শংসাপত্র বিভিন্ন রাশির ১০০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ৫০,০০০ টাকা পর্যন্ত করা যায়।

গ্যারান্টিযুক্ত রিটার্ন - এটি কেন্দ্রীয় সরকার প্রদত্ত একটি প্রকল্প। সুতরাং বিনিয়োগকারীরা বিনিয়োগকৃত অর্থের ফেরত সম্পর্কে নিশ্চিত হতে পারেন।

ঝুঁকিবিহীন বিনিয়োগ - আপনি যদি আপনার জমাকৃত রাশি ঝুঁকিবিহীন বিনিয়োগ করতে চান, তবে কিষাণ বিকাশ পত্র অন্যতম সেরা বিকল্প।

 

Image source - Google

Related link - (PMGKY) প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ যোজনা – এর আওতায় জন ধন অ্যাকাউন্ট হোল্ডারদের অ্যাকাউন্টে পুনরায় ১৫০০ টাকা স্থানান্তর

English Summary: Invest your savings in this scheme & get double return

CopyRight - 2018 Krishi Jagran Media Group. All Rights Reserved.