Student credit card 2021: স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড নিয়ে ফের নয়া নির্দেশ জারি করা হলো

রায়না ঘোষ
রায়না ঘোষ
Student credit card (image credit- Google)
Student credit card (image credit- Google)

স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড নিয়ে ব্যাঙ্কগুলির সঙ্গে ক্রমাগত যোগাযোগ রেখে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হল জেলাশাসকদের। স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে যাতে লোন পাওয়ার সংখ্যা বাড়ে তার জন্য ব্যাংকগুলির সঙ্গে প্রতিনিয়ত যোগাযোগ রাখতে এবং কথা বলতে নির্দেশ দিলেন রাজ্যের মুখ্য সচিব। ইতিমধ্যেই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে প্রায় ১ লক্ষ পড়ুয়া আবেদন করেছেন।

মঙ্গলবার নবান্নে জেলাশাসকের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে মুখ্য সচিব জেলাশাসকের নির্দেশ দেন, ডিস্ট্রিক্ট কো-অপারেটিভ ব্যাংক গুলির উপর আপনারা চাপ দিন যাতে পড়ুয়ারা লোন পায়। বেসরকারি ব্যাংক ও রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোর সঙ্গেও আপনারা ক্রমাগত যোগাযোগ রেখে চলুন। স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড নিয়ে জেলাশাসকের এমনটাই নির্দেশ মুখ্য সচিবের। প্রসঙ্গত, পুজোর আগেই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড নিয়ে বড় আশাব্য়ঞ্জক পদক্ষেপ নিয়েছে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। বলা যেতে পারে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে লোন দেওয়ার কাজে যাতে গতি আসে সেকারনেই এই বিশেষ উদ্যোগ দফতরের। এই উদ্যোগে একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের সঙ্গে চুক্তি করে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। ইউকো ব্যাঙ্কের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয় স্কুল শিক্ষা দফতর।

এদিকে ইতিমধ্যেই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে প্রায় ১ লক্ষ পড়ুয়া আবেদন করেছেন। উল্লেখ্য একাধিক বিষয় ঠিকঠাক থাকলেই তবে লোন মিলতে পারে। এনিয়ে হয়রানি কমাতেও উদ্যোগী হয়েছে সরকার। এই বিষয়ে উদ্যোগী হতে জেলাশাসকের বিশেষ নির্দেশ দিয়েছে নবান্ন। পাশাপাশি সরকারি প্রকল্প রূপায়নের ক্ষেত্রে সহযোগিতা করার ব্য়াপারে সম্প্রতি কড়া বার্তা দেন মুখ্যসচিব। সহযোগিতা না করলে সরকারের অ্য়াকাউন্ট তুলে নেওয়ার ব্যাপারেও জেলা গুলিকে বার্তা দেওয়া হয়। তারপরই নড়েচড়ে বসেছে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন -SBI recruitment 2021: স্টেট ব্যাংকে চাকরির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত, দেখুন বিস্তারিত তথ্য

স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড অনলাইন আবেদন পদ্ধতি(Application process):

১) প্রথমে Student Credit Card এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে কিংবা এগিয়ে বাংলা ওয়েবসাইটে গিয়ে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড পোর্টাল যাওয়া যাবে।

২) ওয়েবসাইটের ওপরে Student Registration বা Student Log in দুটি অপশন দেখা যাবে।প্রথমে Student Registration এ ক্লিক করতে হবে।

৩) এরপর আবেদনকারীর নাম,জন্ম তারিখ,লিঙ্গ,শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের বিবরণ, মোবাইল নাম্বার,জিমেইল আইডি ও একটি পাসওয়ার্ড বসিয়ে দিয়ে সাবমিট এ ক্লিক করতে হবে।

৪) এরপর রেজিস্ট্রেশন মোবাইল নাম্বারে একটি ওটিপি আসবে তা বসিয়ে দিয়ে ভেরিফাই করতে হবে।

৫) রেজিস্ট্রেশন হয়ে যেতেই স্ক্রিনের মধ্যে রেজিস্ট্রেশন আইডি চলে আসবে ও মোবাইল নাম্বারের চলে আসবে | ওয়েবসাইট লিংক:- https://wbscc.wb.gov.in/

৬) ওয়েবসাইটের হোম পেজে এসে এবার Student Log in এর ক্লিক করে আইডি, পাসওয়ার্ড ও ক্যাপচার কোর্ড বসিয়ে দিয়ে লগইন করতে হবে।

৭) এরপর Application Dashboard খুলে আসবে সেখানে নিচে Apply Now এ ক্লিক করে এগিয়ে যেতে হবে।

৮) এরপর পড়ুয়ার পার্সোনাল ডিটেইলস দিতে হবে আবেদন ফর্মে অনলাইনে- নাম,বাবার নাম,মায়ের নাম,লিঙ্গ,বয়স,আধার কার্ড নাম্বর, অভিভাবকের ভোটার কার্ড নাম্বার, মোবাইল নাম্বার ইত্যাদি বসাতে হবে।

৯) এরপর Present Address ও Permanent Address কি আছে পড়ুয়ার তা বসিয়ে দিতে হবে।

১০) পরিবারের বার্ষিক আয় কত,ইনকামের পথ কি, কোন কোর্সে পড়াশোনা করে পড়ুয়া,কোর্স কতদিনের, কত টাকা লোনের প্রয়োজন, পড়ুয়ার কোর্স ফি+টিউশন ফি কত তা উল্লেখ করতে হবে।

১১) পড়ুয়ার একাউন্ট নাম্বার, ব্যাঙ্কের নাম,শাখার নাম,IFSC Code,কোন ব্যাঙ্ক থেকে লোন নিতে চান তা বসিয়ে দিতে হবে।

১২) এরপর অভিভাবকের একাউন্ট নাম্বার, ব্যাঙ্কের নাম,IFSC Code,ব্যাঙ্কের শাখার নাম উল্লেখ করতে হবে।

১৩) সমস্ত কিছু উল্লেখ করার পর Save & Continue এ ক্লিক করে এগিয়ে যেতে হবে পরবর্তী পেজে।

১৪) এরপর ডকুমেন্টস আপলোড করতে হবে ( Student Credit Card Documents List) –

১৫) আবেদনকারীর পাসপোর্ট সাইজের কালার ফটো আপলোড করতে হবে, 20KB থেকে 50KB এর মধ্যে(JPEG & JPG Format)

১৬) অভিভাবকের পাসপোর্ট সাইজের কালার ফটো আপলোড করতে হবে (সাইজ ১৫ নাম্বার পয়েন্টে যা আছে)।

১৭) আবেদনকারীর সিগনেচার ও অভিভাবকের সিগনেচার আলাদা আলাদা ভাবে আপলোড করতে হবে(১০ থেকে ৫০ কেবির মধ্যে)

১৮) আবেদনকারীর আধার কার্ড আপলোড করতে হবে আধার কার্ড না থাকলে মাধ্যমিক রেজিস্ট্রেশন আপলোড করতে হবে।

১৯) অভিভাবকের ভোটার কার্ড আপলোড করতে হবে।

২০) শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ভর্তির রসিদ আপলোড করতে হবে।

২১) পড়ুয়ার প্যান কার্ড ও অভিভাবকের প্যান কার্ড আপলোড করতে হবে।

২২) কোর্স ফি,টিউশন ফি এর রসিদ আপলোড করতে হবে।

২৩) এরপর নিচে T&C বক্স দুটোতে টিক দিয়ে Save & Continue এ ক্লিক করে এগিয়ে যেতে হবে।

২৪) এরপর পরবর্তী পেজে সমস্ত কিছু আর একবার দেখতে পারবেন ও উপরে Download Application Details এ ক্লিক করে আবেদন ফর্ম টি ডাউনলোড করতে পারেন। এরপর সবকিছু ঠিক থাকলে নিচে Submit Application এ ক্লিক করতে হবে।

২৫) এরপর Confirm Submission নামে একটি পপআপ চলে আসবে স্ক্রিনের মধ্যে। সেখানে Yes এ ক্লিক করে এগিয়ে যেতে হবে।

২৬) অবশেষে সঠিক ভাবে আপনার আবেদন হয়ে গেছে,এখন আপনি আপনার আইডি দিয়ে চেক করে দেখে নিতে পারেন আবেদন কতদূরে কি অবস্থায় রয়েছে |

আরও পড়ুন -PM Kisan Yojana: শীঘ্রই কৃষকদের অ্যাকাউন্টে আসতে চলেছে টাকা, দেখে নিন তথ্য

Like this article?

Hey! I am রায়না ঘোষ . Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters