কম বিনিয়োগে ব্যবসা করে আয় করুন দ্বিগুণ মুনাফা

KJ Staff
KJ Staff
Bakery Shop (Image Credit - Google)
Bakery Shop (Image Credit - Google)

ব্যবসা যদি কম বিনিয়োগে শুরু করে অধিক মুনাফা অর্জন করা যায়, তাহলে এতে সব থেকে বেশী উপকৃত হবেন গ্রামের বেকার যুবকরা। আজ এই প্রবন্ধে স্বল্প বিনিয়োগের ব্যবসা সম্পর্কে উল্লেখ করা হবে, যা আপনি সহজেই ঘরে বসে করতে পারেন এবং কম টাকায় শুরু করলেও কিছুদিনের মধ্যে এর থেকে ভালো পরিমাণ মুনাফা অর্জন করতে পারবেন। এই ব্যবসা আপনাকে অল্প সময়ের মধ্যে একজন ভাল ব্যবসায়ী করে তুলবে।

আসুন জেনে নেওয়া যাক এই ব্যবসাগুলি সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে –

পেপার প্লেট ব্যবসা (Paper plate business) -

পেপার প্লেট ব্যবসা করতে পারলে মাসিক উপার্জনের সম্ভাবনা ভালোই রয়েছে৷ কারণ, অনুষ্ঠান বাড়ি হোক বা পুজোর ভোগ বিতরণ, সবক্ষেত্রে এই পেপার প্লেট (Paper Plate) ব্যবহার করা হয় প্রভূত পরিমাণে৷ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এটি ব্যবহার করা হয়৷ এর চাহিদার পিছনে কারণ হিসেবে রয়েছে সময় এবং পরিশ্রমের সাশ্রয়৷ খাওয়া-দাওয়াতে এই ধরণের কাগজের থালা-বাটি-গ্লাস ব্যবহারে তা সহজেই ফেলে দেওয়া যায়, এবং ধুয়ে রাখার প্রয়োজন হয় না৷ ফলত পরিশ্রম অনেকটাই কমে যায়৷ পাশাপাশি এটি প্লাস্টিক নয়, পেপার (বা শাল পাতার থালা) থেকে এটি তৈরি হওয়ায় এর থেকে দূষণের সম্ভাবনাও থাকে না৷ তাই এই ধরণের একটি ব্যবসার (Paper Plate Business) সঙ্গে নিজেকে যুক্ত করার পরিকল্পনা করতেই পারেন৷

পুঁজি কম থাকলে ছোট স্তরে এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন৷ মোটামুটি ৩০ হাজার টাকার মধ্যে মেশিনের মাধ্যমে করতে পারবেন৷ বড় স্তরে করতে চাইলে স্বয়ংক্রিয় মেশিনের সাহায্য নিতে পারেন, সেক্ষেত্রে আরও ১০-১৫ হাজার টাকা বেশি লাগতে পারে৷

প্রাতঃরাশের দোকান -

এটি এমন একটি ব্যবসা, যা আপনি যে কোনও সময় এবং যে কোনও জায়গায় শুরু করতে পারেন। এর জন্য, আপনার খুব বেশী এ সম্পর্কে জানারও দরকার নেই। এই ব্যবসাটি আপনাকে ভাল উপার্জন দিতে পারে। এই ব্যবসাটির একটি বিশেষ সুবিধা হল এর জন্য আপনাকে গ্রাহক খুঁজে বের করতে হবে না। একবার লোকেরা আপনার দোকান সম্পর্কে জেনে গেলে তারা নিজেরাই আপনার কাছে আসবে। আপনাকে শুধু খেয়াল রাখতে হবে যে, আপনি যা কিছু তৈরি করছেন তা যেন সুস্বাদু এবং ভাল সংস্থার জিনিস দিয়ে তৈরী হয়। এছাড়া জলখাবারের সাথে বাড়িতে মিষ্টি তৈরী করেও আপনি রাখতে পারেন। কম বিনিয়োগ করে সহজেই এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন এবং ভাল আয় করতে পারেন।

বেকারি শপ (Bakery Shop) -

সময়ের সাথে সাথে মানুষের খাদ্যাভাসেও পরিবর্তন এসেছে। দিন দিন তাই বেকারি পণ্যের চাহিদাও বাড়ছে। আগে আমরা কেবল বড়দিনে এবং জন্মদিনের কেক নেওয়ার সময় বেকারি শপে যেতাম। এখন বেকারি শপগুলিতে বিভিন্ন ধরণের স্ন্যাকস ও কুকিস পাওয়া যায়, যা আমরা সকলেই পছন্দ করি। বলা বাহুল্য, এগুলি জনপ্রিয় খাদ্য। স্বল্প রাশি বিনিয়োগ করে শুরু করার পর এটি বিক্রি করে আপনি সহজেই ভালো পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। অতএব, এই ব্যবসাটি আপনাকে প্রচুর সুবিধা দিতে পারে। আপনি যদি চান তবে আপনি একটি বিখ্যাত বেকারি চেইনের ফ্র্যাঞ্চাইজি নিতে পারেন বা আপনার নিজের দোকানও খুলতে পারেন। এটির জন্য খুব বেশি বিনিয়োগের প্রয়োজন নেই। আর যে কোন জায়গাতেই এই জাতীয় দোকান খুব ভালোই চলে।

আরও পড়ুন - আমুল কোম্পানির সাথে ব্যবসা করে উপার্জন করুন অতিরিক্ত অর্থ

টিফিন পরিষেবা ব্যবসা -

সাম্প্রতিক কালে আমাদের আশেপাশে কর্মজীবী ​​এবং শহরে একা বসবাসরত শিক্ষার্থীদের সংখ্যা নেহাতই নগণ্য নয়। তারা একা থাকে এবং বিভিন্ন কারণ বশত সময়ের অভাবে তাদের নিজেদের রান্না করার পর্যাপ্ত সময় নেই, অথচ টিফিন তো সকলেরই দরকার পরে। আপনি যদি ভাল রান্না করতে জানেন, তবে আপনি নিজেই টিফিন পরিষেবা ব্যবসা শুরু করতে পারেন। প্রতিদিনের খাদ্য সরবরাহ/ক্যান্টিন পরিষেবা আপনার বাড়ি থেকেই শুরু করুন। এর জন্যও আপনার খুব বেশী বিনিয়োগের দরকার নেই। ১০,০০০ টাকা থেকেই এই ব্যবসা আপনি শুরু করতে পারেন। পরে আপনার সুবিধা অনুযায়ী এই ব্যবসা সম্প্রসারণ করতে পারেন।

আরও পড়ুন - বাড়ির ছাদে সোলার প্ল্যান্ট বসিয়ে আয় করুন লক্ষ লক্ষ অর্থ, জানুন বিস্তারিত

Like this article?

Hey! I am KJ Staff. Did you liked this article and have suggestions to improve this article? Mail me your suggestions and feedback.

Share your comments

আমাদের নিউজলেটার অপশনটি সাবস্ক্রাইব করুন আর আপনার আগ্রহের বিষয়গুলি বেছে নিন। আমরা আপনার পছন্দ অনুসারে খবর এবং সর্বশেষ আপডেটগুলি প্রেরণ করব।

Subscribe Newsletters